Communication Information of Tourism or Parjatan Place of Brahmanbaria | Bangla Printing View

Important Tourism Information of Bangladesh

Tourism or Parjatan Communication Information of Brahmanbaria District, Bangladesh
by md. abidur rahman | parjatanbd | A Home of Tourism
Information Collected By :    Sumaiya Yeasmin | সুমাইয়া ইয়াসমি

Linik of Communication Information

Barisal | Chittagong  | Dhaka | Khulna | Mymensing 
Rangpur | Rajshahi | Sylhet

Bangla | English

 
বাংলাদেশের ব্রাম্মণবাড়ীয় জেলার ভ্রমণ স্থানের যোগাযোগের বর্ণনার লিংক এখানে দেয়া আছে। ভ্রমণকারী ভ্রমণ স্থানে ভ্রমণ করতে ইচ্ছে পোষণ করলে এখান থেকে তথ্য নিয়ে ভ্রমণ করতে পারবে। এর ফলে রওনার পৃর্বেই তারা সে স্থানের যাতায়াত সম্পর্কে অবগত ও সঠিক সিদ্ধান্ত গ্রহণ করতে পারবে। তথ্যই সঠিক সিদ্ধান্ত নেয়ার মূল সহায়ক।

 

  ভ্রমণ স্থানের নাম ভ্রমণ স্থানে যাওয়ার বর্ণনা বা কিভাবে যাবেন
বিদ্যাকুট সতীদাহ মন্দির
নবীনগর থেকে রিক্সা করে যাওয়া যাবে ।
নাটঘর মন্দির
নবীনগর হতে রিক্সা করে যাওয়া যাবে ।
আয়েত উল্লাহ শাহ এর মাজার
ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহর হতে সিএনজি নিয়ে যাওয়া যাবে ।
উলচাপাড়া মসজিদ
ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহর হতে সিএনজিতে যাওয়া যাবে ।
কোল্লাপাথর শহীদ সমাধিস্থল
ব্রাহ্মণবাড়িয়া হতে সিএনজিতে যাওয়া যাবে ।
হাটখোলা মসজিদ বা আরফান নেছার মসজিদ
বাংলাদেশের যে কোন প্রান্ত থেকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার বিশ্বরোড মোড় এসে সিএনজি যোগে সরাসরি আসা যায় । উপজেলা চত্বর থেকে রিক্সা যোগে কিংবা পায়ে হেটেও যাওয়া যায় ।
আব্দুর রহমান শাহের মাজার
ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরে এসে সিএনজিতে যাওয়া যাবে ।
শ্রী শ্রী কালাচাঁদ বাবাজীর মন্দির
ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরে এসে সিএনজিতে যাওয়া যাবে ।
এমপি টিলা
নবীনগর এসে লঞ্চে আসা যাওয়া করা যায় অন্যদিকে  নরসিংদী হতে লঞ্চে আসা যাওয়া করা যায় ।
আরিফাইল মসজিদ
বাংলাদেশের যে কোন স্থান হতে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার বিশ্বরোড মোড়, সিএনজিতে সরাসরি আসা যাবে । উপজেলা চত্বর হতে রিক্সায় বা পায়ে হেটে যাওয়া যাবে ।
জয়কুমার জমিদার বাড়ী
বুড়িশ্বর হতে পায়ে হেটে ১০ মিনিটে জমিদার বাড়ীতে যাওয়া যাবে। বুড়িশ্বর ইউনিয়নের যে কোন জায়গা থেকে যানবাহনের মাধ্যমে যাওয়া যাবে তবে গংগানগর হতে নৌ পথে যেতে হবে।
সলিমগঞ্জ কলেজ
নবীনগর হতে সি এন জি বা মটর বাইক ও বর্ষাকালে নৌকায় যাওয়া যাবে।
কচুয়া মাজার
নাসিরনগর হতে নৌকায় চাতলপাড় বাজার ও পশ্চিমে পায়ে হেটে কচুয়া মাজার, সরাইল হতে নৌকায় চাতলপাড়, চাতলপাড় হতে কচুয়া, ভৈরব হতে নৌকায় চাতলপাড়, লাখাই হতে নৌকায় চাতলপাড়।
ধর্মতীর্থ পটিয়া নদী পাড় (ধরন্তীঘাট)
ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরে এসে সিএনজিতে যাওয়া যাবে ।
কেল্লা শহীদ মাজার
কাউতলী হতে লোকাল সিএনজি যাওয়া যাবে ।
কালিকচ্ছ নন্দীপাড়াস্থ দয়াময় আনন্দধাম।
ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরে এসে সিএনজিতে যাওয়া যাবে ।
টিঘর জামাল সাগর দীঘি
ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরে এসে সিএনজিতে যাওয়া যাবে ।
লক্ষীপুর শহীদ সমাধিস্থল
কসবা উপজেলা সদর হতে ৩কিঃমিঃ উত্তর পূর্বে গোপীনাথপুর ইউনিয়ন-এর লক্ষীপুর গ্রামে।
হাতিরপুল
বাংলাদেশের যে কোন প্রান্ত হতে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার  বিশ্বরোড মোড়, সিএনজিতে সরাসরি আসা যাবে। উপজেলা চত্বর হতে সিএনজিতে যাওয়া যাবে।
মুক্তিযোদ্ধে নিহত ৭১ জন শহীদের নামে নির্মিত
ব্রাহ্মণবাড়িয়া শহরে এসে সিএনজিতে যাওয়া যাবে ।
 

 

 

 

Welcome